‘দি অ্যাক্সিডেন্টাল প্রাইম মিনিস্টার’নিয়ে বিতর্ক, অস্কারের দাবী অনুপমের

[su_heading size=”19″]প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংহের উপর নির্মিত ছবি ‘দি অ্যাক্সিডেন্টাল প্রাইম মিনিস্টার’ এর ট্রেলার প্রকাশের পর থেকেই ভারতের রাজনৈতিক মহলে শুরু হয়েছে বিতর্ক।[/su_heading]

ট্রেলারে দেখা যাচ্ছে, কংগ্রেসের হাইকম্যান্ডের চাপের মুখে ইস্তফা দেওয়ার কথা ভাবছেন মনমোহন সিংহ। মনমোহন সিংহের প্রাক্তন মিডিয়া উপদেষ্টা সঞ্জয় বারুর লেখা বইয়ের উপর ভিত্তি করে তৈরি হয়েছে এই সিনেমা।

কংগ্রেস অভিযোগ করছে বিজেপি নিজেদের স্বার্থসিদ্ধির জন্য ভোটের আগে এ ধরনের ছবি বানিয়েছে । এই বিতর্কে নতুন মাত্রা যোগ করল ছবিতে মনমোহনের চরিত্রে অভিনয় করা প্রবীণ অভিনেতা অনুপম খের। তিনি বললেন, ‘দি অ্যাক্সিডেন্টাল প্রাইম মিনিস্টার’ ছবিটির অস্কারের জন্য মনোনয়ন পাওয়া উচিত।

শুক্রবার ছবির অভিনেতা অনুপম জানান, তাঁর মতে ছবিটি এবং তাঁর অভিনয় অস্কারের মনোনয়ন পাওয়ার যোগ্য। অভিনেতা বলেন, ‘‘যাঁরাই ট্রেলার দেখেছেন, তাঁরাই বলেছেন, ‘আপনাকে একদম মনমোহন সিংহের মতো লাগছে।’ এমনকি, আমার মা-ও আমাকে চিনতে পারেননি। কিন্তু এই বিষয়টি নিয়ে কেউ একটি কথাও বলছেন না। যাঁরা ছবির বিরোধিতা করছেন, তাঁদের উচিত আমার নাম অস্কারের জন্য প্রস্তাব করা।’’নন

অনুপম আরও বলেন, ‘‘বিশ্বজুড়ে এই ধরনের চরিত্রে অভিনয় করে অনেকেই অস্কার পেয়েছেন। যেমন, ‘লিঙ্কন’-এর চরিত্র করে ড্যানিয়েল ডে-লুইস, মার্গারেট থ্যাচারের চরিত্র করে মেরিল স্ট্রিপ এবং‌ গাঁধীর চরিত্রের জন্য বেন কিংসলে।’’ বলা হয় বিজেপি-ঘনিষ্ঠ অনুপম খের । অনুপম আক্ষেপ করে বলেন , ‘‘এটা খুবই দুর্ভাগ্যজনক যে, আমাদের দেশে কাজ বা চিন্তার চেয়ে প্রতিবাদ-আন্দোলন বেশি গুরুত্ব পায়। এখন পর্যন্ত যতগুলি ছবিতে আমি অভিনয় করেছি, এটি ছিল সবচেয়ে কঠিন চরিত্র।’’

লোকসভা ভোটের আগে ‘দ্য অ্যাক্সিডেন্টাল প্রাইম মিনিস্টার’ ছবিটির মুক্তি নিয়ে কংগ্রেস যে অভিযোগ করেছে, তার উত্তরে অনুপম বলেন, ‘‘সরকার এবং প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে তৈরি কোনও ছবি নির্বাচনের আগে মুক্তি পাওয়া যুক্তিযুক্ত।’’ পাশাপাশি ছবি নিয়ে তাঁর ইঙ্গিতপূর্ণ মন্তব্য, ‘‘যখন কোনও সিনেমা কোনও সরকার ও প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে হয় এবংনির্বাচনের আগে তা প্রকাশিত হয়, তখন তা কোন অর্থ বহন করে।’’ তিনি আরও বলেছেন, ‘‘প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রীর মিডিয়া উপদেষ্টার লেখা বইয়ের উপর ভিত্তি করে তৈরি হয়েছে এই সিনেমা। বইটি গত চার বছর ধরে বাজারে রয়েছে। কিন্তু কেউ কোনও অভিযোগ জানায়নি। দু’বছর আগে যখন আমার লুক প্রকাশিত হয়েছিল তখন সংবাদপত্রে তা নিয়ে খবরও বেরিয়েছিল।কিন্তু সেন্সর বোর্ডের ছাড়পত্রের পর বেশি হইচই শুরু হল।’’