নোয়াখালীতে ভুল অপারেশনে প্রসূতি মা ও শিশুর মৃ`ত্যু, দুইজন গ্রে`ফতার

গত বুধবার দিবাগত রাতে নোয়াখালীর পৌর শহরের দি নিউ সেন্ট্রাল প্রাইভেট হাসপাতালে ভুল অপারেশনে প্রসূতি মা ও শিশুর মৃ`ত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় হাসপাতালের মালিক সোহেলের ছোট ভাই এবং সেনবাগ পৌরসভার বাবুপুর গ্রামের ওহিদুর রহমানের ছেলে হারুন অর রশিদ (২৫) ও পরিচালক উপজেলার কাবিলপুর গ্রমের মাহমুদুল হকের ছেলে আমিরুল ইসলাম (৩১) গ্রে`ফতার করা হয়েছে। 

এ দিন ৪ টার দিকে সেনবাগ উপজেলার ৩নং ডুমুরুয়া ইউনিয়নের হোমনাবাদ-শ্রীপুর গ্রামের মো. রিপনের স্ত্রী বিবি কুলসুম (১৯) প্র`সব ব্যথা নিয়ে সেনবাগ পৌর শহরের দি নিউ সেন্ট্রাল প্রাইভেট হাসপাতালে ভর্তি হন।

আরও পড়ুন: যুক্তরাজ্যের প্রথম মুসলিম অর্থমন্ত্রী হলেন পাকিস্তানি বংশোদ্ভূত সাজিদ জাভিদ

এরপর রাত ১০টার দিকে অপারেশন করার জন্য হাসপাতালের অপারেশন থিয়েটারে নিয়ে যাওয়া হয়। এ সময় ভূল সিজার করা প্রসূতি মা গু`রুতর অ`সুস্থ হয়ে পড়লে হাসপাতাল মালিক একটি মাইক্রোবাস যোগে ওই প্রসূতি মাকে দুইজন নার্স দিয়ে চট্টগ্রামের উদ্দেশ্য প্রেরণ করেন। পথিমধ্যে ফেনীতে তার মৃ`ত্যু হয়।

রোগীর স্বজনদের অভিযোগ, কোনো অভিজ্ঞ ডাক্তার না থাকায় মালিক পক্ষের লোকজনই অপারেশন করা শুরু করে। 

আরও পড়ুন: আল্লামা সাঈদীকে দেখতে আদালতে উপচে পড়া মানুষের ভিড়

সেনবাগ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মিজানুর রহমান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ‘ঘটনার পর থেকে এখন পর্যন্ত দুইজনকে আটক করা হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় মা`মলা দায়ের হয়েছে। মা`মলাটি তদন্তের জন্য ওসি তদন্ত মো. আলী পাটোওয়ারীকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।’

উল্লেখ্য, সম্প্রতি এ হাসপাতালের বৈধ কাগজপত্র ও অব্যবস্থাপনার দায়ে জেলা এক্সকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে আশি হাজার টাকা জরিমানা আদায় করেছিলো।