রামুর কানারাজার গুহায় কক্সবাজার জেলার চারুশিল্পীদের রাত্রিযাপন ১৭ জানুয়ারি

প্রতিবেদক:: ব্যতিক্রমধর্মী নানান আয়োজনে আগামী শুক্রবার (১৭ জানুয়ারি) রামুর ঐতিহাসিক কানারাজার গুহায় রাত্রিযাপন করবেন কক্সবাজার জেলার চারুশিল্পীরা। কক্সবাজার আর্ট ক্লাবের উদ্যোগে আয়োজিত উক্ত অনুষ্ঠানে কক্সবাজার জেলার দুইশত জন চারুশিল্পী অংশগ্রহনের পাশাপাশি আমন্ত্রিত থাকছেন সুধীসমাজও।ইতিমধ্যে অনুষ্ঠান সফল করতে সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছেন বলে জানিয়েছেন আর্ট ক্লাবের সাধারন সম্পাদক রিয়াজুল কবির বিবন।

তিনি আরও বলেন আগামী শুক্রবার (১৭ জানুয়ারি) বিকাল ৩ টায় রামু বাইপাস থেকে শুরু হবে গুহা যাত্রা। ঐতিহাসিক কানারাজার গুহায় মুল অনুষ্ঠান শুরু হবে সুর্যাস্তের পর,চলবে সুর্যোদয় পর্যন্ত। চমকপ্রদ ও অভিনব এই অনুষ্ঠানে কোনপ্রকার বৈদ্যুতিক আলো ছাড়াই মশালের আলোতে আলোকিত করা হবে গুহা প্রঙ্গন। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে জ্বালানো হবে একশত মশাল। অনুষ্ঠান মালায় আরও থাকবে লোকজ ও আদিম সংস্কৃতির উপস্থাপন।গুহা মুখে লোকজ ঢং এ ভোজন করবে অংশগ্রহনকারীরা। উপস্থিত সকলের অংশগ্রহনে আদিম বাদ্য বাজনা, গান,নৃত্য,কবিতা,গল্প করেই কটানো হবে পুরােটা রাত।

কক্সবাজার আর্ট ক্লাবের সভাপতি তানবীর সরওয়ার রানা বলেন, একটি রাত স্বপ্নিল ও শৈল্পিক ভাবে উপভোগ করতেই ঐতিহাসিক এই স্থানে আমাদের ব্যতিক্রমী এই আয়োজন। বাংলাদেশের একমাত্র গুহাভিত্তিক সংস্কৃতিক ঐতিহ্য কানারাজার গুহাকে ব্র্যান্ডিং করা আমাদের আরেকটি লক্ষ্য। সহযোগীতার জন্য কক্সবাজারের আটটি উপজেলার লোকজ চারুশিল্পীদের নিয়ে গঠিত চারুশিল্পী অধিকার আন্দোলন এর সকল সদস্যের প্রতি কৃতজ্ঞতা।