ছাত্রলীগের সম্পাদককে পেটালো পদবঞ্চিত নেতাকর্মীরা

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) ক্যাম্পাস সংলগ্ন প্রধান ফটকের সামনে বেলা ২টার দিকে ছাত্রলীগের সম্পাদকসহ অন্তত ২০ নেতাকর্মীকে পিটিয়ে আহত করা হয়েছে। আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে মঙ্গলবার শাখা ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের মধ্যে এ ঘটনা ঘটে।

শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক গ্রুপের কর্মীদের সঙ্গে পদবঞ্চিত গ্রুপের নেতাকর্মীদের মধ্যে এ সংঘর্ষ হয়।

এতে ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রাকিবুল ইসলাম রাকিবসহ ২০ নেতাকর্মী আহত হন। এসময় সাধারণ সম্পাদক রাকিবুল ইসলাম রাকিব ও তার এক সহযোগীকে আটক করে কুষ্টিয়া সদর থানা পুলিশ।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি ও সম্পাদক ক্যাম্পাসে আসার খবরে সকাল থেকেই ক্যাম্পাসে অবস্থান নেয় পদবঞ্চিত গ্রুপের নেতাকর্মীরা। সভাপতি রবিউল ইসলাম পলাশ ও সম্পাদক রাকিবুল ইসলাম রাকিবের অনুসারীরা মিছিল নিয়ে মেইন ফটকে আসলে পদবঞ্চিত গ্রুপের নেতা মিজানুর রহমান লালন, আল আমিন জোয়াদ্দার, তৌকির মাহফুজ মাসুদের নেতৃত্বে তাদের উপর হামলা চালানো হয়।

এতে সম্পাদক রাকিব, আমিন, শামস, আরিফ, রাফিদ, শাকিল, ফাহিম, রাকিব, আল আমিন আহত হন। গুরুতর আহত রাকিবসহ তিনজনকে কুষ্টিয়া মেডিকেলে ও বাকিদের ইবি মেডিকেলে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়। এদিকে সংঘর্ষের সময় পরপর তিনটি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটান ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা।

শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি রবিউল ইসলাম পলাশ বলেন, আমাদের শান্তিপূর্ণ কর্মসূচির উপর অতর্কিতভাবে হামলা করা হয়েছে। বিষয়টি আমরা কেন্দ্রীয় কমিটিকে অবহিত করব। তারা এর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবে।

এ বিষয়ে প্রক্টর (ভারপ্রাপ্ত) ড. আনিছুর রহমান বলেন, যেকোনো ধরনের অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা এড়াতে আমরা কাজ করে যাচ্ছি। আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী মাঠে রয়েছে। এখন পরিবেশ শান্ত আছে।