‘মেঘের ক্যানভাস’ আসছে মাছরাঙ্গায়

[su_heading]একজন চিত্রশিল্পীকে কেন্দ্র করে ত্রিভুজ প্রেমের গল্প নিয়ে নির্মিত টেলিছবি ‘মেঘের ক্যানভাস’। আগামী ২৭ অক্টোবর শনিবার রাত ৮টা ৩০ মিনিটে মাছরাঙ্গা টেলিভিশনে প্রচারিত হবে। [/su_heading]

সৌরভ বোস প্রযোজিত ও তারুণ্যলোক পরিবেশিত টেলিছবিটি রচনা করেছেন দয়াল সাহা ও ফরিদ উদ্দিন মোহাম্মদ। মাহতাব শফি ও ফায়সাল তনুর সার্বিক তত্ত্বাবধানে টেলিফিল্মটি নির্মাণ করেন ফরিদ উদ্দিন মোহাম্মদ।

সৌরভ বোস বলেন, ব্যাতিক্রমী ত্রিভুজ প্রেমের গল্প নিয়ে নির্মিত এ টেলিফিল্মটি আশা করি দর্শকদের ভালো লাগবে। আগামীতে দর্শকদের জন্য আসছে আরো কিছু ভিন্নধর্মী কাজ।

টেলিফিল্মের গল্পে দেখা যায়, চিত্রশিল্পী মেঘের সাথে দেখা হয়ে যায় বিষন্নতায় ঘেরা ইরার সাথে। ইরাকে দেখেই তার ছবি আঁকতে চায় মেঘ তার শূণ্য ক্যানভাসে। ছবি আঁকা, কথোপকথন আর গল্পের পসরা সাজে মেঘ আর ইরাকে ঘিরে। ইরা হয়ত তার পেছনের গল্প ভুলে মেঘের সাথে স্বপ্ন বুনতে চায়। কিন্তু এর মাঝেই এক নির্জণ রাতে পরী নামে ভিষণ রহস্যময় এক নারীর সাথে পরিচয় হয় মেঘের। যে নিজেকে রাতের দেবী মনে করে আর সময় বিক্রি করা তার পেশা। মেঘ ইরার কাছ থেকে সময় কিনে নেয়, আর অনেক সময় ধরে পরীর ছবি আঁকতে থাকে। তার ছবি দিয়ে এক্সিবিশন করবে মেঘ। ছবি আঁকার ফাঁকে ফাঁকে কথার মালা বোনা হয় মেঘ-পরীর। মেঘ পরীর প্রেমে পড়ে যায়। কিন্তু পরী মেঘকে সম্মতি জানাতে চায় না… গল্পটা চলতে থাকে। শূণ্য ক্যানভাসে মেঘ-পরী আর ইরার গল্প।

এতে বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেছেন ইরফান সাজ্জাদ, তাসনুভা তিশা, তানজিকা আমিন, আরজে সাব্বির হাসান লিখন ও শেলী আহসান শেলী। এছাড়াও গানের সুর ও কণ্ঠ দিয়েছেন তরুণ কণ্ঠশিল্পী আবু বকর সিদ্দিক নাভিদ।

নির্মাতা ফরিদ উদ্দিন মোহাম্মদ বলেন, ‘বরাবরের মতই আমি আর আমার টিম চাই যে ভিন্ন মাত্রার কিছু করতে। মানুষ, মানুষের চাওয়া-পাওয়া, মনস্তাত্বিক দ্বন্দ্ব আর সাইকোলজিকাল টার্ম নিয়ে খেলতে আমার দারুণ লাগে। আশা করছি এই কাজটাও দর্শকদের ভালো লাগবে ‘।